বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর, ২০২০ ইং, ১২ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
আজ বৃহস্পতিবার | ২৬ নভেম্বর, ২০২০ ইং

ফ্রান্সে মহানবী স. এর কটুক্তির প্রতিবাদে শরীয়তপুরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ

বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০ | ১০:৩০ পূর্বাহ্ণ | 43 বার

ফ্রান্সে মহানবী স. এর কটুক্তির প্রতিবাদে শরীয়তপুরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ

ফ্রান্সে প্রকাশ্যে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (স.)কে কটুক্তি ও ফ্রান্স সরকারের ইসলাম বিরোধী অবস্থানের প্রতিবাদে শরীয়তপুরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) সকাল ১০ টার দিকে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ শরীয়তপুর জেলা শাখার ব্যানারে পালং উত্তর বাজার থেকে এক বিশাল বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে কোর্ট চত্তরে গিয়ে শেষ হয়। এর আগে পালং উত্তর বাজার জামে মসজিদ চত্তরে সংক্ষিপ্ত বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রায় সহস্রাধিক মুসল্লী অংশ নিয়ে মুসলমানদের প্রাণের স্পন্দন মহানবী হযরত মুহাম্মদ (স.) ও ইসলাম নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদ জানায়।

সংগঠনের জেলা শাখার সভাপতি মাওলানা শওকত আলীর সভাপতিত্বে ও জেলা সেক্রেটারী মাওলানা হাফিজুর রহমানের সঞ্চালনায় মিছিল পূর্ব সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন জেলা সিনিয়র সহ-সভাপতি এস এম আহসান হাবিব, জাতীয় ওলামা-মাশায়েখ আইম্মা পরিষদ এর জেলা আহŸায়ক ফেরদৌস আহমাদ, সদস্য সচিব মুফতি মনির হোসাইন, ইসলামী আন্দোলন জেলা সহ-সভাপতি মুফতি তোফায়েল আহমেদ কাসেমী, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন জেলা সভাপতি মোহাম্মদ আয়াত আলী, সেক্রেটারি মাওলানা সিদ্দিকুর রহমান, ইসলামী যুব আন্দোলন জেলা সভাপতি মুফতী ইমরান হোসাইন, সেক্রেটারি মাওলানা হযরত আলী, ইশা ছাত্র আন্দোলন জেলা সভাপতি হোসাইন মোহাম্মদ ইলিয়াস প্রমুখ।

এ সময় বক্তারা বলেন, ফ্রান্সে বিশ্বনবী হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে ব্যাঙ্গচিত্র তৈরী ও তা প্রদর্শণ করে ইসলাম ধর্মের যে অবমাননার ধৃষ্টতা দেখানো হয়েছে তা মোটেও কাম্য নয়। আমরা ধর্মপ্রিয় মুসলমান এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানাই। অচিরেই এ ঘটনার জন্য ফ্রান্সের প্রধানমন্ত্রী সহ ব্যাঙ্গচিত্র নির্মাণকারীকে ক্ষমা চেয়ে এই ব্যাঙ্গচিত্র প্রদর্শণ বন্ধ করতে হবে। না হয় ফ্রান্সের জন্য ভয়াবহ পরিনতি অপেক্ষা করছে।

বিক্ষোভ মিছিল থেকে ফ্রান্সের বিরুদ্ধে জাতীয় সংসদে নিন্দা প্রস্তাব উত্থাপন এবং ফ্রান্সের সকল ধরনের পণ্য বাংলাদেশে সরকারিভাবে নিষিদ্ধ করার দাবী জানানো হয়।

সংবাদটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন
Share on FacebookShare on Google+Tweet about this on TwitterShare on LinkedInPrint this page

মন্তব্য

comments


সর্বশেষ  
জনপ্রিয়